সোমবার, জানুয়ারী ২১, ২০১৯ | ৮, মাঘ, ১৪২৫
 / জেলার খবর / স্কুল-কলেজ ফাঁকি দিয়ে খারাপ কাজে লিপ্ত হচ্ছে শিক্ষার্থীরা
মো.শহিদুল ইসলাম।।ডেসটিনি অনলাইন :
Published : Wednesday, 9 January, 2019 at 7:09 PM, Update: 09.01.2019 7:17:35 PM, Count : 316
স্কুল-কলেজ ফাঁকি দিয়ে খারাপ কাজে লিপ্ত হচ্ছে শিক্ষার্থীরা

স্কুল-কলেজ ফাঁকি দিয়ে খারাপ কাজে লিপ্ত হচ্ছে শিক্ষার্থীরা

গাজীপুর মহানগরীর বিভিন্ন স্কুল ও কলেজের শিক্ষার্থীরা ক্লাস ফাঁকি দিয়ে এলাকার বিভিন্ন পার্কে বেহায়াপনাসহ বিভিন্ন অপকর্ম করে যাচ্ছে। স্কুল-কলেজের ক্লাশ চলাকালীন সময়ে এসব শিক্ষার্থীদের বেপরোয়াভাবে চলাফেরা বেড়েই চলেছে। পার্ক ছাড়াও রেস্টুরেন্ট, রেললাইন, ও আবাসিক হোটেলসহ বিভিন্ন স্থানে জোড়ায় জোড়ায় স্কুল শিক্ষার্থীরা দৃষ্টিকটু ভাবে বসে সময় কাটাচ্ছে।

এলাকার বিভিন্ন স্থানে ঘুরে দেখা যায় স্কুল ও কলেজের শিক্ষার্থীরা বেপরোয়াভাবে ঘুরে বেড়াচ্ছে। বিভিন্ন সময় শিক্ষার্থীরা নানা অজুহাত দেখিয়ে ক্লাস ফাঁকি দিয়ে ঘুরে বেড়ায়।আর এই চিত্র খুব সহজে দেখা মিলে এলাকার রেস্টুরেন্ট, রেললাইন ও পার্ক গুলোতে।এগুলো দেখার যেন সমাজে কোন লোক নেই।

কোনাবাড়ী মেঘের ছায়া পার্কের ম্যানেজার ফজলুর রহমান ডেসটিনি অনলাইনকে জানান আমাদের পার্কে কোন রকম স্কুল কলেজের ছাত্র/ ছাত্রী প্রবেশ করতে দিচ্ছি না আমাদের মালিকের নিষেধ। কিন্তু পার্কের ভিতরে স্কুল,কলেজ পড়ুয়া শিক্ষার্থীরা কাধে ব্যাগ নিয়ে ঘুরতে দেখা যাচ্ছে। ম্যানেজার কে জিজ্ঞাস করলে তিনি বলেন এগুলোর তো কোন পোশাক পড়া নেই তবে বিষয়টি আমরা সচেতনতার সাথে দেখবো। 

এলাকার সচেতন মহলের দাবী, পার্ক এবং রেস্টুরেন্ট  কতৃপক্ষ যাতে একটু সচেতন থাকে। মা-বাবা সন্তানদের স্কুলে পাঠিয়ে নিশ্চিন্ত থাকে যে আমার সন্তান খুব লেখাপড়া করে। ভাবেন সন্তান মানুষ হচ্ছে আসলে সন্তান যে কি মানুষ হচ্ছে তা পার্কে গেলে দেখা যাচ্ছে।

কিন্তু মা-বাবার চোখকে ফাঁকি দিয়ে তারা সময় কাটায় বিভিন্ন পার্কে। রবিবার (৬ই জানুয়ারী) ঘড়ির কাটায় সময়টা তখন সকাল ১২টা ১৫ মিনিট।  স্কুল বা কলেজের ক্লাস চলাকালীন এই সময়টায় কোনাবাড়ীর একটি পার্কে  গিয়ে দেখা গেল কোথাও জোড়ায় জোড়ায় আবার কোথাও দল বেঁধে আড্ডা দিচ্ছে স্কুল-কলেজে পড়ুয়া ছেলে-মেয়েরা পোশাক পড়া অবস্থা।গায়ে স্কুলের ইউনির্ফম আর সাথে স্কুল কলেজের ব্যাগ।

পার্কে আগত তরুণ-তরুণীর সাথে আলাপ করে জানা যায়, তারা বেশ  স্বনামধন্য স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থী। পার্কে অড্ডারত এক শিক্ষার্থীর কাছে জানতে চাইলে সে বলে, এটা ভাল না, তবে মন ভাল নেই তাই এখানে বেড়াতে আসছি, আমরা আর কোন দিন আসবো না।

অন্য এক শিক্ষার্থী বলে, মা-বাবা জানলে কষ্ট পাবে, তবে পার্কে আসতে ভাল লাগে।শিক্ষার্থীরা নিত্যদিন স্কুল-কলেজ ফাঁকি দিয়ে বিভিন্ন স্থানে নিজেদের সীমাবদ্ধ রাখছে না। ঝুঁকে পড়ছে নানান অসামাজিক ও অশ্লীলতা কর্মকান্ডে।এতে বিব্রতকর পরিস্থিতিতে পড়ছে সাধারণ দর্শনার্থীরাও।

এই বিষয়ে অভিভাবকরা বলেন,মা-বাবাদেরকে আরো সচেতন হতে হবে। শিক্ষক-অভিভাবকদের সমন্ময়ে ছেলে-মেয়েদেরকে সচেতন করতে হবে।এ বিষয়ে কথা হয় কোনাবাড়ী একটি সুনামধারী স্কুলের শিক্ষকের  সাথে,তিনি জানান,স্কুল চলাকালে কোন ছাত্র বা ছাত্রী পার্কে কিংবা কোথাও ঘুরাফেরা করা উচিত না।  তাছাড়া এ বিষয়ে শিক্ষকদের পাশাপাশি অবশ্যই অবিভাবকদের সচেতন হতে হবে।

সচেতন মহলের দাবি হচ্ছে প্রশাসনের তদারকিতে যে করেই হোক বিদ্যালয়ের ক্লাশ চলাকালীন সময়ে শিক্ষার্থী ছেলে মেয়েরা যেন পার্কে গিয়ে বেপরোয়াভাবে চলাফেরা করে লেখাপড়া ধ্বংস করে বাজে পথে না যেতে পারে সে বিষয়ে গুরুত্ব দেয়া।

এ বিষয়ে সচেতন মহল মনে করেন, স্কুল-কলেজের শিক্ষক ও অভিভাবকরা তাদের সন্তানদের প্রতি খোঁজ-খবর নেয়া জরুরি। তাদের সন্তানরা ঠিকমতো প্রতিদিন স্কুল-কলেজে যাচ্ছে কিনা বা সবগুলো ক্লাশে অংশ নিচ্ছে কিনা, তা প্রতিদিন খোঁজ নেয়া খুবই জরুরি।


দৈনিক ডেসটিনি’র অনলাইনে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


প্রকাশক ও সম্পাদক : মোহাম্মদ রফিকুল আমীন।
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মিয়া বাবর হোসেন।
© ২০০৬-২০১৮ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | দৈনিক ডেসটিনি.কম
আলী’স সেন্টার, ৪০ বিজয়নগর ঢাকা-১০০০।
বিজ্ঞাপন : ০১৫৩৬১৭০০২৪, ৭১৭০২৮০
email: ddaddtoday@gmail.com, ওয়েবসাইট : www.dainik-destiny.com
ই-মেইল : destinyout@yahoo.com, অনলাইন নিউজ : destinyonline24@gmail.com
Destiny Online : +8801719 472 162