এই মাত্র পাওয়া : ২১ জন বিশিষ্ট নাগরিককে বিভিন্ন ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ ‘একুশে পদক’ প্রদান করছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা
মঙ্গলবার, ২০ ফেব্রুয়ারি, ২০১৮
 / তথ্য ও প্রযুক্তি / ইউনিয়ন পর্যায়ে পৌছে যাবে ব্রডব্যান্ড সেবা
মোঃ মাসুদ রানা,ডেসটিনি অনলাইন :
Published : Wednesday, 7 February, 2018 at 8:05 PM, Count : 119
ডেসটিনি-অনলাইন

ডেসটিনি-অনলাইন

বাংলাদেশের প্রত্যেকটি ইউনিয়নে ইন্টারনেটের ফাইবার কানেক্টিভিটি (ব্রডব্যান্ড) পৌঁছে দেওয়া হবে, তথ্য প্রযুক্তিকে আরও সহজ করার জন্য এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। আজ বুধবার রাজধানীর কম্পিউটার সিটি সেন্টারে ডিজিটাল আইসিটি ফেয়ার ২০১৮ উদ্বোধন অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্য প্রযুক্তিমন্ত্রী মোস্তাফা জব্বার।


প্রধান অতিথির বক্তব্যে মোস্তফা জাব্বার বলেন, একটি সময় ছিল যখন আমরা গ্রামে গঞ্জে সাধারণ শিক্ষার্থীদের মধ্যে কম্পিউটার শিক্ষা প্রদান করতাম। যাতায়াত ব্যবস্থা খারাপ থাকার কারণে নৌকায় করে কম্পিউটার নিয়ে গিয়ে প্রশিক্ষন দিতাম। কিন্তু এখন শিশু কিশোর থেকে শুরু করে সকলের হাতে এনড্রয়েড ডিভাইস। সবাই ইন্টারনেট সম্পর্কে জানে এবং ব্যবহার করতে পারে। এই উন্নতি তথ্য প্রযুক্তির উন্নয়নের কারণেই সম্ভব হয়েছে। মন্ত্রী বলেন, ২০০৮ সালে ইন্টারনেটের সুবিধা ভোগ করত মাত্র ১২ লক্ষ মানুষ। কিন্তু এখন সেই সংখ্যা বেড়ে দাড়িয়েছে ৮.৫ কোটিতে। ২০০৮ সালে ইন্টারনেটের সর্বোচ্চ গতি ছিল ৮ জিবিপিএস ব্যান্ডউইথ। কিন্তু এখন সেই গতি বেড়ে হয়েছে ৫৬০ জিবিপিএস ব্যান্ডউইথ। তথ্য প্রযুক্তির দিক দিয়ে দিন দিন বাংলাদেশ এগিয়ে যাচ্ছে দাবি করে মোস্তাফা জাব্বার বলেন, ২০২১ সালের মধ্যে বাংলাদেশ মধ্য আয়ের দেশে পরিণত হবে। এবং এই ধারাবাহিকতা বজায় থাকলে অবশ্যই ২০৪১ সালের মধ্যে উচ্চ আয়ের দেশে পরিনত হবে।


তিনি বলেন, এটা এখন আর স্বপ্ন নয় সত্যি, কারণ এখন ১৩.৫ কোটি জনগণ মোবাইল ব্যবহার করে। ৮.৫ কোটি মানুষ ইন্টারনেটের আওতার মধ্যে। মন্ত্রী আরও বলেন, একদিন আমাদের দেশেই স্যাটেলাইট তৈরি করা হবে। এবং সোফিয়ার মত কৃত্তিম বুদ্ধিমত্ত্বাসম্পন্ন রোবট তৈরি করা হবে। তথ্য প্রযুক্তির প্রতিটি ক্ষেত্রে অবদান রাখবে বাংলাদেশের জনগণ। আমরা কম্পিউটার আমদানিকারক দেশে থেকে উপাদনকারী দেশে উপনিত হচ্ছি। প্রায় ২০ টি প্রতিষ্ঠান বাংলাদেশে কারখানা তৈরি করতে ইচ্ছা প্রকাশ করেছে। আশার কথা হলো, আমরা এই মাসেই নেপাল ও ভুটানে দেশের তৈরি কম্পিউটার রপ্তানি করবো,বলে জানিয়েছেন ডাক, টেলিযোগাযোগ ও তথ্যপ্রযুক্তি মন্ত্রী।


মেলার প্লাটিনাম স্পন্সর এসার, ডেল, এইচপি, লজিটেক, এক্সট্রিম। গোল্ড স্পন্সর হল আসুস, এফোরটেক, লেনেভো। সিলভার স্পন্সর হল টিপি-লিংক, ডি-লিংক, ইউসিসি। স্পন্সর টেন্ডা এবং গেমিং পাটনার গিগাবাইট। ৫ দিনব্যাপী  ডিজিটাল আইসিটি মেলায় বিশেষ আয়োজন হিসেবে থাকছে-শিশুদের চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতা, সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান, গেমিং জোন এবং আকর্ষণীয় নানা আয়োজন। মেলা চলাকালীন প্রবেশ টিকেটের উপর প্রতিদিন র‍্যাফেল ড্র অনুষ্ঠিত হবে। মেলার প্রবেশ টিকেটের মূল্য রাখা হয়েছে ১০ টাকা।


এছাড়াও উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন, ঢাকা ১০ আসনের সংসদ সদস্য ব্যারিষ্টার শেক ফজলে নূর তাপস, শিক্ষাবিদ ড. জামিলুর রহমান চৌধুরী, ঢাকা মহানগর দক্ষিনের আওয়ামী লীগ সভাপতি শাহে আলম মুরাদ, বাংলাদেশ কম্পিউটার সিটি সেন্টারের সভাপতি আলী আশফাক প্রমুখ। অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ত্ব করেন, ডিজিটাল আইসিটি ফেয়ার ২০১৮ এর আহ্বায়ক তৌফিক এহসান।


দৈনিক ডেসটিনি’র অনলাইনে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


প্রকাশক ও সম্পাদক : মোহাম্মদ রফিকুল আমীন।
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মিয়া বাবর হোসেন।
© ২০০৬-২০১৮ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | দৈনিক ডেসটিনি.কম
আলী’স সেন্টার, ৪০ বিজয়নগর ঢাকা-১০০০।
বিজ্ঞাপন : ০১৫৩৬১৭০০২৪, ৭১৭০২৮০
email: ddaddtoday@gmail.com, ওয়েবসাইট : www.dainik-destiny.com
ই-মেইল : destinyout@yahoo.com, অনলাইন নিউজ : destinyonline24@gmail.com
Destiny Online : +8801719 472 162