সোমবার, ডিসেম্বর ১০, ২০১৮ | ২৬, অগ্রহায়ণ, ১৪২৫
 / লাইফস্টাইল / খিচুড়ির যত পুষ্টিগুণ
ডেসটিনি অনলাইন :
Published : Sunday, 13 May, 2018 at 9:37 PM, Count : 1093
খিচুড়ির যত পুষ্টিগুণ

খিচুড়ির যত পুষ্টিগুণ

আপনার শরীর থেকে বিষ বের করার জন্য মাত্র এক থালা খিচুড়ি-ই যথেষ্ট। আর আপনার দেহ-মন সুস্থ রাখতে এক থালা খিচুড়ি সাহায্য করবে। আচ্ছা আপনি কী জানেন, আপনার শরীরে কিভাবে প্রতি সেকেন্ডে বিষ জমছে? আপনি কী করে জানবেন, আপনি তো আর কোনো বিশেষজ্ঞ ডাক্তার নয়।

এ বিষয়ে বিশেষজ্ঞরা বলছেন, শরীরের নিজস্ব মেকানিজম থাকে। আর এর মাধ্যমে অন্দরে জমে থাকা টক্সিনদের বিতারিত করে। আর তাতে অধিকাংশ সময়ই কিডনি কাজ করে। বাকী অংশটুকু ঘাম ও নিঃশ্বাসের মাধ্যমে দেহ থেকে বাইরে বের হয়। তবুও কিছু না কিছু পরিমাণ বিষ শরীরে থেকেই যায়। আর এই কিছু পরিমাণ বিষ-ই শরীরকে আস্তে আস্তে সময় নিয়ে নষ্ট করতে শুরু করে।

সমস্যা যেহেতু আছে তাহলে এর সমাধানও অবশ্যই আছে। এ থেকে পরিত্রাণ পেতে খিচুড়ি যথেষ্ট পরিমাণ ভূমিকা রাখে। খিচুড়ি শরীরকে পুরোপুরি বিষমুক্ত করে। যা কিনা শরীরের অন্দরের টক্সিন উপাদানের পরিমাণ কমিয়ে এনে নিরবে কাজ করে যেতে থাকে।


চলুন এবার তাহলে খিচুড়ির পুষ্টিগুণ/উপকারিতা সম্পর্কে জেনে নেওয়া যাক-


ওটস খিচুড়ি :
যদি শরীরকে ধুয়ে মুছে পরিষ্কার রাখতে চান তাহলে মাঝে মধ্যে ওটস খিচুড়ি আপনাকে খেতেই হবে। এতে উপস্থিত ফাইবার, প্রোটিন এবং কার্বোহাইড্রেট দেহে উপস্থিত টক্সিক উপাদানদের বের করে দেয়ার সঙ্গে সঙ্গে আরও নানাভাবে শরীরের উপকারে লাগে।

সবজির খিচুড়ি :
সবজি খিচুড়ি কিন্তু আপনি চাইলে প্রতিদিনই খেতে পারেন। কেননা, এই সবজি খিচুড়িতে প্রচুর মাত্রায় ফাইবার, অ্যান্টিঅক্সিডেন্ট, কার্বোহাইড্রেট, প্রোটিন এবং বেশ কিছু খনিজ রয়েছে। যা কিনা হজম ক্ষমতার উন্নতি ঘটানোর পাশাপাশি একাধিক রোগের প্রকোপ কমাতে বিশেষ ভূমিকা পালন করে থাকে।

মুগ ডালের খিচুড়ি : আপনাদের অনেকেই যারা ওজন কমাতে চান। তারা কিন্তু প্রায় প্রতিদিনই ব্রেকফাস্টে এই খাবারটি খেতে পারেন। আসলে পেট বেশিক্ষণ ভরা থাকলে অতিরিক্ত খাবার খাওয়ার ইচ্ছা চলে যায়। ফলে শরীরে প্রয়োজন অতিরিক্ত ক্যালরি প্রবেশ করতে পারে না। আর এতে শরীর অসুস্থ হওয়ার আশংকাও থাকে না।

কাওনের খিচুড়ি :
প্লোটিন, ফাইবার, ফসফরাস এবং অ্যামাইনো অ্যাসিডে পরিপূর্ণ এই খিচুড়িটি বাস্তবিকই শরীর বান্ধব। প্রোটিন এবং ফাইবার একদিকে যেমন শরীরকে সুস্থ রাখতে সাহায্য করে, তেমনি অন্যদিকে অ্যামাইনো অ্যাসিড এবং ফসফরাস কোষেদের কর্মক্ষমতা বাড়ানোর পাশাপাশি শরীরে জমে থাকা টক্সিক উপাদান যাতে ঠিক মতো বেরিয়ে যেতে পারে সেদিকেও খেয়াল রাখে।


দৈনিক ডেসটিনি’র অনলাইনে প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না।


« পূর্ববর্তী সংবাদপরবর্তী সংবাদ »


প্রকাশক ও সম্পাদক : মোহাম্মদ রফিকুল আমীন।
ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : মিয়া বাবর হোসেন।
© ২০০৬-২০১৮ সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত | দৈনিক ডেসটিনি.কম
আলী’স সেন্টার, ৪০ বিজয়নগর ঢাকা-১০০০।
বিজ্ঞাপন : ০১৫৩৬১৭০০২৪, ৭১৭০২৮০
email: ddaddtoday@gmail.com, ওয়েবসাইট : www.dainik-destiny.com
ই-মেইল : destinyout@yahoo.com, অনলাইন নিউজ : destinyonline24@gmail.com
Destiny Online : +8801719 472 162